বুধবার, ২৭ অক্টোবর ২০২১, ০৬:২২ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
Logo সৈয়দকাঠীতে বিদ্রোহী চেয়ারম্যান প্রার্থী বীর মুক্তিযোদ্ধা রাজ্জাক মাস্টার আনারস প্রতীক পেয়েছেন Logo মনোনয়ন না পেলেই একে অপরকে রাজাকার বানাতে ব্যস্ত ঃ ওবায়দুল কাদের। Logo ঠাকুরগাঁওয়ের সেই তেলের ঘানি টানা দম্পতিকে গরু ও অর্থ উপহার দিলেন- জেলা প্রশাসক Logo বরিশাল লঞ্চঘাটে থ্রি হুইলার থেকে সুমনের চাঁদাবাজি বন্ধের প্রতিবাদে মানববন্ধন Logo শিকলে বাঁধা মৌসুমি এখন স্বাভাবিক জীবনে। Logo আসন্ন ইউপি নির্বাচনে বাকেরগঞ্জ নিয়ামতি ইউনিয়নে ১ নং ওয়ার্ডে জনমত জরিপে এগিয়ে রয়েছেন বাবুল আকন। Logo ঠাকুরগাঁওয়ে ঐতিহ্যবাহী টাংগন ব্যারেজের গেট উত্তলন। Logo কর্মহীন হয়ে পড়েছেন লেবুখালী ফেরিঘাট কেন্দ্রিক জীবিকা নির্বাহকারী শতাধিক ফেরিওয়ালা ও টং দোকানদার ব্যবসায়ীরা। Logo বরিশাল বানারীপাড়া থানায় পিতা ও পুত্রের বিরুদ্ধে হত্যা চেষ্টার অভিযোগ। Logo রুহিয়া ইউপি নির্বাচনে আবারও মনিরুল হক বাবুকে নৌকার কান্ডারী দেখতে চায় ইউনিয়নবাসী ।

আমলাতন্ত্র এখন আমলালীগ হয়ে গেছে ঠাকুরগাঁওয়ে- মির্জা ফখরুল

দৈনিক আলোকিত প্রভাত / ৪৬ বার পঠিত
আপডেট সময় : বুধবার, ৮ সেপ্টেম্বর, ২০২১, ৪:৪২ অপরাহ্ণ

কুদরত আলী ঠাকুরগাঁও প্রতিনিধি ঃ
আওয়ামীলীগ এখন আর আওয়ামীলীগ নেই। তারা এখন রাজনৈতিকভাবে দেউলিয়া হয়ে গেছে। ক্ষমতা টিকে থাকার জন্য আওয়ামীলীগ আমলতাতন্ত্রকে ব্যবহার করছে। প্রকৃতপক্ষে আমলাতন্ত্র এখন আমলালীগ হয়ে গেছে বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। তিনি বুধবার পৌর শহরের আশ্রমপাড়া হাওলাদার কমিউনিটি সেন্টারে জেলা বিএনপির বর্ধিত সভায় উপরোক্ত কথা বলেন।

মির্জা ফখরুল বলেন, বিচার বিভাগ থেকে শুরু করে প্রশাসন, পুলিশ ও আইনশৃঙ্খলা বাহিনীসহ সমস্ত রাষ্ট্রযন্ত্র গুলোকে তারা দলীয়ভাবে নিয়ন্ত্রণ করছে। যার কারণে আওয়ামীগ এখন এ দেশকে তাঁদের পৈত্রিক সম্পত্তি ভাবতে শুরু করেছে। দলীয় নেতা কর্মীদের মামলার প্রসঙ্গ তুলে মির্জা ফখরুল বলেন, একটি গণতান্ত্রিক রাষ্ট্রে কল্পনাও করা যায় না ৩৫ লাখ রাজনৈতিক মামলা হয়। কিন্তু এই ফ্যাসিস্টবাদী সরকার সেই কল্পনাকেও হার মানিয়েছে। কথা বললেও মামলা, কোথাও মিটিং করলেও মামলা। মামলা হামলা বন্ধ করে তিনি সরকারকে পদত্যাগ করে একটি সকলের কাছে গ্রহনযোগ্য নির্বাচনের আয়োজন করতে আহবান জানান।

তিনি আরও বলেন, অবশ্যই নতুন করে নির্বাচন অনুষ্ঠানের জন্য নির্বাচনকালীন সময়ে একটি নিরপেক্ষ সরকারের অধিনে নির্বাচন দিতে হবে। যেটা জনগণের কাছে গ্রহনযোগ্য হয় সেটাই হবে বিএনপির একমাত্র দাবি। এ দাবি আদায়ের লক্ষ্যে সমস্ত দল মত নির্বিশেষে সকলকে ঐক্যবদ্ধ হয়ে লড়াই সংগ্রামে একসাথে কাজ করতে হবে। ইতিপূর্বে সকল রাজনৈতিক মামলা তুলে নিতে হবে এবং নিরপেক্ষ নির্বাচন কমিশন গঠনের মধ্য দিয়ে নির্বাচনকালীন সময়ে নিরপেক্ষ সরকার গঠনের মাধ্যমে নতুন করে নির্বাচনের আয়োজন করতে হবে। এটাই হবে সরকারের প্রতি সবচেয়ে বড় আহবান।
এসময় আরো উপস্থিত ছিলেন, জেলা বিএনপির সভাপতি তৈমুর রহমান, সাধারণ সম্পাদক মির্জা ফয়সল আমিন, সহ সভাপতি আল মামুন, সুলতানুল ফেরদৌস ন¤্র চৌধুরী, অর্থ সম্পাদক শরিফুল ইসলাম শরিফ, মহিলা দলের সভাপতি ফুরাতুন নাহার প্যারিস, জেলা যুবদলের সভাপতি মাহেবুল্লাহ আবু নুর, সাধারণ সম্পাদক মাহাবুব হোসেন তুহিন,জেলা বিএনপির যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আনছারুল হক, রুহিয়া থানা বিএনপি সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা মোস্তফা কামালসহ সহ বিএনপির বিভিন্ন অঙ্গ সংগঠনের নেতৃবৃন্দ।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরও খবর

ফেসবুকে আমরা

Theme Customized By Theme Park BD